fbpx

অ্যাপ ছাড়া চুক্তিভিত্তিক রাইড শেয়ারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা: হুঁশিয়ারি বিআরটিএ’র

Pinterest LinkedIn Tumblr +
Advertisement

‘রাইড শেয়ারিং সার্ভিস নীতিমালা-২০১৭’ অমান্য করলে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)।

আজ বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) এক সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তিতে অ্যাপ ব্যবহার না করে চুক্তিভিত্তিক যাত্রী পরিবহন এবং অতিরিক্ত ভাড়া আদায় বিষয়ে এ হুঁশিয়ারি দেয় বিআরটিএ।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ‘রাইড শেয়ারিং সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান, রাইড শেয়ারিং সেবাদানকারী মোটরযান মালিক, চালক এবং সেবাগ্রহণকারীদের অবহিত করা যাচ্ছে যে, অ্যাপভিত্তিক রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদান এবং গ্রহণের জন্য সরকার কর্তৃক রাইড শেয়ারিং সার্ভিস নীতিমালা-২০১৭ প্রবর্তন করা হয়েছে। নীতিমালা অনুযায়ী, বিআরটিএ থেকে রাইড শেয়ারিং অ্যানলিস্টমেন্ট সার্টিফিকেট গ্রহণ করতে হবে। এরপর রাইড শেয়ারিং অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করে সংশ্লিষ্ট সেবা প্রদান ও গ্রহণ এবং সুনির্দিষ্ট ভাড়া আদায় করার শর্ত রয়েছে।’

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, ‘সম্প্রতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে যে, কিছু মোটরযান চালক কর্তৃক রাইড শেয়ারিং নীতিমালার শর্তাদি প্রতিপালন না করে চুক্তিভিত্তিক রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদান এবং অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হচ্ছে, যা ‘রাইড শেয়ারিং সার্ভিস নীতিমালা-২০১৭’ এর পরিপন্থি। এছাড়াও অ্যাপ ছাড়া চুক্তিভিত্তিতে রাইড শেয়ারিং সেবা গ্রহণ না করার জন্য সেবাগ্রহণকারীদের বিরত থাকতে অনুরোধ করা যাচ্ছে।’

‘এ অবস্থায় রাইড শেয়ারিং সার্ভিস নীতিমালা-২০১৭ এর বিধান লঙ্ঘন করে চুক্তিভিত্তিক মোটরযান পরিচালনাসহ অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করলে সংশ্লিষ্ট রাইড শেয়ারিং সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান, মোটরযান মালিক, চালক এবং সেবাগ্রহণকারীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

বিআরটিএ বলছে, চুক্তিভিত্তিক যাত্রী পরিবহন ও অতিরিক্ত ভাড়া আদায় সংক্রান্ত যে কোনো অভিযোগ বিআরটিএ সদরদপ্তরের রাইড শেয়ারিং শাখার সহকারী পরিচালক (ইঞ্জিনিয়ারিং) বরাবর জানানো যাবে। আর অভিযোগ করার জন্য ০১৭১৪-৫৫৬৭৭০ ও ০২-৫৫০৪০৭৪৫ নম্বরে ফোন করে যোগাযোগ করতে হবে। কেউ চাইলে লিখিত অভিযোগ, এমনকি ইমেইলও করতে পারবে। সেক্ষেত্রে [email protected] ঠিকানায় ইমেইল করতে হবে।

Advertisement
Share.

Leave A Reply