fbpx

এনওসি ছাড়া ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ নিষেধ

Pinterest LinkedIn Tumblr +

যেসব বাংলাদেশি এখন ভারতে অবস্থান করছেন, তাদের দেশে ফিরতে হলে অবশ্যই এনওসি (অনাপত্তিপত্র) সঙ্গে রাখতে হবে। এই অনাপত্তিপত্র ছাড়া কোনো বাংলাদেশি দেশে ঢুকতে পারবে না।

ভারতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ মহামারি আকার ধারণ করায় সোমবার থেকে ১৪ দিনের জন্য ভারতের সঙ্গে সীমান্ত বন্ধ ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ। এরপর বাংলাদেশের কলকতা উপ-হাইকমিশনার এক প্রজ্ঞাপন জারি করে এই নির্দেশনা দিয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ২৬ এপ্রিল থেকে ৯ মে পর্যন্ত ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের স্থল সীমান্তে বিদেশিদের সব ধরনের যাতায়াত বন্ধ থাকবে। এই সময়ে উপ-হাইকমিশনে ভিসা সেবা ও স্থলসীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশিদের চলাচলও বন্ধ থাকবে।

এনওসি ছাড়া ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ নিষেধ

ছবি: সংগৃহীত

তবে যেসব বাংলাদেশি এই মুহূর্তে ভারত সফরে রয়েছেন এবং ভিসার মেয়াদোর্ত্তীণতাজনিত কারণে তাদের বাংলাদেশে ফেরত আসা প্রয়োজন, তাদেরকে বেনাপোল-পেট্রাপোল স্থলসীমান্ত দিয়ে দেশে ফেরার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে বাংলাদেশে প্রবেশের আগে তাদের কোভিড নেগেটিভ সার্টিফিকেট এবং কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশন থেকে এনওসি নিতে হবে। বাংলাদেশে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ তাদের প্রয়োজনীয় কোয়ারেন্টিনের ব্যবস্থা করবে।

সেখানে আরও বলা হয়েছে, কলকাতার উপ-হাইকমিশনের অনুমতি বা এনওসি ছাড়া কোনও বাংলাদেশি নাগরিক ২৬ এপ্রিল থেকে ৯ মে পর্যন্ত ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে পারবে না। এনওসি পেতে  বাংলাদেশে ফেরতের প্রয়োজনীয়তা উল্লেখ করে আবেদন, ভারতে যোগাযোগের ঠিকানা ও ফোন নম্বর, পাসপোর্টের কপি, ভিসার পাতার কপি লাগবে।

এছাড়া যে কোনও প্রয়োজনে বাংলাদেশ হাইকমিশনের সঙ্গে +৯১৩৩৪০১২৭৫০০ নম্বরের মাধ্যমে যোগাযোগ করা যাবে। পাশাপাশি উপ হাইকমিশনের ফেসবুক ও টুইটারেও যোগাযোগ করা যাবে।

Share.

Leave A Reply