fbpx

চলছে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার নিয়ে উত্তেজনার প্রহর…

Pinterest LinkedIn Tumblr +

সংস্কৃতি, চলচ্চিত্র, বিনোদন আর দর্শক-সাংবাদিকদের আড্ডা – যেকোনো আলোচনার গন্তব্য এখন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রসঙ্গে। এ বছর আমাদের দেশে কারা জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাচ্ছেন তা নিয়ে ইতোমধ্যেই নানা আলোচনা ও গুঞ্জন শুরু হয়েছে।

জানা গেছে, জুরিবোর্ড তাদের বিচার-বিবেচনার কাজ শেষ করে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে পাঠিয়ে দিয়েছেন। পুরস্কারপ্রাপ্তদের নাম চূড়ান্ত করা নিয়ে এখনো কোনো আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসেনি। প্রাথমিকভাবে কিছু নাম শোনা যাচ্ছে, যাদের বিজয়ীর কাতারে থাকার সম্ভাবনা রয়েছে।

চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় থেকে পাওয়া প্রাথমিক তথ্যের ভিত্তিতে এবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের আসরে রয়েছে সেরা অভিনেতা বিভাগে শাকিব খান, প্রাণ রায় এবং সেরা অভিনেত্রী হিসেবে শবনম বুবলী, নুসরাত ইমরোজ তিশা ও জ্যোতিকা জ্যোতির নাম।

এছাড়া, সম্ভব্য সেরা নায়ক হতে যাচ্ছেন তারিক আনাম খান “আবার বসন্ত” ছবিতে অভিনয়ের জন্য। আর সেরা নায়িকা হতে যাচ্ছেন সুনেরাহ বিনতে কামাল জীবনের প্রথম সিনেমা “ন ডরাই” এ অভিনয়ের জন্য।

শোনা যাচ্ছে, মাসুদ পথিক পরিচালিত “মায়া দ্য লস্ট মাদার” ছবিটি আটটি বিভাগে পুরষ্কার পেতে পারে।

এছাড়া, ইমপ্রেস টেলিফিল্মের “ফাগুন হাওয়া” ও দেশ বাংলা মাল্টিমিডিয়ার “মনের মতো মানুষ পাইলাম না” ছবির তিনটি করে পুরস্কার পাওয়ার কথা রয়েছে।

পাশাপাশি, ছয়টি বিভাগে সেরার পুরস্কার অর্জনের খবর শোনা যাচ্ছে “ন ডরাই” ছবিটির। তবে, যুগ্মভাবে সেরা ছবির জন্য ফরিদুর রেজা সাগর প্রযোজিত “ফাগুন হাওয়া” ও মাহবুর উর রহমানের “ন ডরাই” ছবির কথা শোনা যাচ্ছে। পরিচালক হিসেবে তানিম রহমান অংশুর প্রথম ছবি “ন ডরাই”। তাঁর দ্বিতীয় ছবি “আদি” পরিচালনা করে প্রথমবারের মতো সেরা পরিচালকের পুরস্কার পেতে যাচ্ছেন।

শোনা গেছে, এবার যুগ্মভাবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার দেওয়া হতে পারে আজীবন সম্মাননাসহ মোট সাতটি বিভাগে।

এদিকে, শুরু থেকেই চিরকুট ব্যান্ডের ইমন চৌধুরী সেরা সংগীত পরিচালক হিসেবে, সুরকার তানভীর তারেক ও আবদুল কাদির, গীতিকার কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী ও নির্মলেন্দু গুণের নাম শোনা যাচ্ছে। এবার ফজলুর রহমান বাবু পার্শ্ব চরিত্রে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা হিসেবে পুরস্কার পাওয়ার কথা শোনা যাচ্ছে। আর আফরীন আক্তার ও নাইমুর রহমানকে নির্বাচিত করা হতে পারে শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী হিসেব।

তথ্য মন্ত্রণালয় ১৭ নভেম্বর জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের জন্য মনোনীত ৩৩ জন শিল্পী ও  কলাকুশলীর পুরস্কার প্রদানে দরপত্র আহ্বান করেছে। দরপত্রে মনোগ্রামসহ ৩৩টি পাটের ব্যাগ, চেক ও সনদ ফোল্ডার তৈরির কথা বলা হয়েছে।

আর যেহেতু এখন পর্যন্ত আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষণা আসেনি, তাই শেষ মুহূর্তে এই তালিকা বদলে যেতে পারে বলে ধারনা করছে সংশ্লিষ্টরা। তাই উত্তেজনা পিছু ছাড়ছে না ফিল্ম পাড়ায়। যার প্রভাব এখনও বিস্তৃত দেশ জুড়ে।

Share.

Leave A Reply