fbpx

বিশ্ব ঋতুস্রাব সচেতনতা দিবসে দেয়ালচিত্রের উদ্বোধন

Pinterest LinkedIn Tumblr +

মেয়েদের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিতে ঋতুচক্রকালীন স্বাস্থ্যবিধি নিয়ে অভিভাবকদের মাঝে সচেতনতা বাড়ানোয় পরামর্শ এসেছে সামাজিক আয়োজন থেকে।

বিশ্ব ঋতুস্রাব সচেতনতা দিবস উপলক্ষে সম্প্রতি রাজধানীর গুলশানে পুলিশ প্লাজা সংলগ্ন এলাকায় দেয়ালচিত্র উদ্বোধন করা হয়। ক্রেয়নম্যাগ নামে সামাজিক সংগঠনের আয়োজনে ‘ঋতুর সাথে হোক সন্ধি’ শীর্ষক ক্যাম্পেইনে সপ্তাহ জুড়ে চলবে প্রচারণা।

আজরা মাহমুদ, পূজা সেনগুপ্ত, মেহের আফরোজ শাওন, শারমিন সুলতানা সুমির মতো মিডিয়া ব্যক্তিত্বরা সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি শেয়ার করে এবং এতে অংশ নিয়ে ক্যাম্পেইন এর পক্ষে সমর্থন দেখিয়েছে।

ক্রেয়নম্যাগের আয়োজনে সহযোগী হিসেবে আছে প্রাভা হেলথ, আইক্যান ফাউন্ডেশন এবং ব্যাকপেইজ পিআর। দেয়ালচিত্র, বিলবোর্ড প্রচারণাসহ সামাজিক মাধ্যমে সপ্তাহজূড়ে চলবে সচেতনতা কর্মসূচী।

দেয়ালচিত্র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, ঋতুকালীন স্বাস্থ্যবিধি বিষয়টি মাধ্যমিক পাঠ্যপুস্তকে অন্তর্ভুক্ত হলেও অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অধ্যায়টি পড়ানো হয় না।

আয়োজকরা জানান, টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে দেশকে এগিয়ে রাখতে সাধারণ মানুষের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিতে জ্ঞান বিনিময় কার্যক্রমের উদ্যোগ নিয়েছে ক্রেয়নম্যাগ।

ক্রেয়নম্যাগের প্রতিষ্ঠাতা তানজিরাল দিলশাদ দিতান বলেন, সামাজিক উন্নয়নে জ্ঞান বিনিময় জরুরি এবং আমরা এমন একটি ক্যাম্পেইন আয়োজন করার জন্য চেষ্টা করেছি যার মাধ্যমে সামাজিক অন্ধতা দূর করা সম্ভব।

‘প্রাপ্তির কমতি, অধিক খরচ, সাংস্কৃতিক, এবং সামাজিক বিভিন্ন বাধার কারণে অনেক মহিলাই স্যানিটারি প্যাডের বদলে, সস্তা বিকল্প পদ্ধতি ব্যাবহার করেন যা স্বাস্থ্যকর নয়’ বললেন প্রাভা হেলথের চিফ মেডিকেল অফিসার, ডাঃ সিমিন মাজিদ আক্তার। ‘প্রাভাতে আমরা সবসময় প্রতিরোধমূলক স্বাস্থ্যসেবার পক্ষে এবং এই ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে আমরা সচেতনতা বাড়ানোর এবং যতটা সম্ভব নারী ও মেয়েদের সহায়তা দেওয়ার আশা করি।’

আইক্যান ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা আইরিন খান বলেন, ‘ক্রেয়নম্যাগের সামাজিক উদ্যোগের সাথে অনেকদিন কাজ করছে আইক্যান এবং এই প্রচারণা সাংগঠনিক সম্পর্কে ‘নতুন মাত্রা’ যোগ করবে।’

২০১৪ সালে জার্মানি ভিত্তিক একটি উন্নয়ন সংস্থার মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী নারী এবং মেয়েদের উদ্বুদ্ধ করার জন্য শুরু হয়েছিলো এই দিবসের। পাঁচ দিনের ঋতুচক্র প্রতি ২৮ দিন পর পর ঘটার ফলে মে মাসের ২৮ তারিখ টিকে দিবস হিসেবে ঘোষণা হয়।

Share.

Leave A Reply