fbpx

মণ্ডপে কোরআন রাখার বিষয়ে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন ইকবাল

Pinterest LinkedIn Tumblr +

কুমিল্লার পূজামণ্ডপে পবিত্র কোরআন শরিফ রাখার ঘটনায় প্রধান অভিযুক্ত ইকবাল হোসেনকে আটক করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে মণ্ডপে পবিত্র কোরআন রাখার বিষয়টি ইকবাল স্বীকার করেছেন বলে জানিয়েছেন আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর এক কর্মকর্তা।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) রাত ১০টার দিকে ইকবালকে কক্সবাজারের সুগন্ধা পয়েন্ট থেকে আটক করে পুলিশ। পরবর্তীতে আজ শুক্রবার (২২ অক্টোবর) দুপুরে তাকে কুমিল্লা পুলিশ লাইনে নেওয়া হলে সেখানেই তিনি কোরআন রাখার বিষয়টি স্বীকার করেন।

পুলিশের ওই কর্মকর্তা আরও জানান, হনুমানের প্রতিমা থেকে গদা সরিয়ে নেওয়ার কথাও ইকবাল স্বীকার করেছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা আরও বলেন, গ্রেপ্তারের পর থেকেই ইকবাল অসংলগ্ন আচরণ করছেন।

জানা গেছে, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর একাধিক ইউনিট তাকে কক্সবাজার থেকে গ্রেপ্তার করে জেলা পুলিশ লাইনে নেওয়ার পর থেকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। পরবর্তীতে সংবাদ সম্মেলনে ইকবালের বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে বলে সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন কুমিল্লা জেলা পুলিশের ডিআইও মনির আহমেদ।

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কর্মকর্তারা মনে করছেন, ইকবাল গ্রেপ্তার হওয়ায় এখন এই চক্রের সাথে জড়িত সবাইকে চিহ্নিত এবং আইনের আওতায় আনা সম্ভব হবে।

Share.

Leave A Reply