fbpx

মহেশখালীতে বিপরীত দুই প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে নিহত ১, গুলিবিদ্ধ ৪

Pinterest LinkedIn Tumblr +

কক্সবাজারের সাগরদ্বীপ মহেশখালীতে ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থীর সাথে বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় আবুল কালাম নামে ৪০ বছর বয়সী এক ব্যক্তির গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয়। এ সময় গুলিবিদ্ধ হন আরও চারজন। এ ঘটনার পর ওই কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ স্থগিত ছিল। তবে, দুই ঘণ্টা স্থগিত থাকার পর বেলা ১১টার দিকে ওই দুই কেন্দ্রে আবারও ভোট গ্রহণ শুরু হয়।

আজ সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) সকাল সোয়া নয়টার দিকে কুতুবজোম ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের কুতুবজোম দাখিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ দলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থী শেখ কামালের সমর্থকেরা সকাল নয়টার দিকে ওই কেন্দ্রে গিয়ে জাল ভোট দেওয়ার অজুহাত তুলে হইচই শুরু করেন। তখন বিদ্রোহী প্রার্থী মোশারফের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ, পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। এ সময় গুলিবিদ্ধ পাঁচজনকে প্রথমে মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়। পরবর্তীতে সেখান থেকে আবুল কালামকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানোর সময় পথেই তার মৃত্যু হয়।

আবুল কালামের মৃত্যুর খবরটি সংবাদমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন, মহেশখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল হাই।

ওসি আবদুল হাই জানান, এই দুই কেন্দ্রে আবারও ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। পরিস্থিতি বর্তমানে নিয়ন্ত্রণে আছে।

জানা গেছে, আজ সকাল আটটা থেকে কক্সবাজারের দু’টি পৌরসভা চকরিয়া ও মহেশখালী এবং টেকনাফ, মহেশখালী, কুতুবদিয়া ও পেকুয়ার ১৪টি ইউনিয়নে ভোট গ্রহণ চলছে।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, দুই পৌরসভায় মেয়র পদে ৮ জন, সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ২৫ জন ও সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে ৭৬ জন এবং ১৪টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৯২ জন, সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডে ১৯৯ জন ও সাধারণ ওয়ার্ডে ৭৭৫ জন প্রার্থী লড়ছেন।

Share.

Leave A Reply