fbpx

পশু-পাখিরও খাবার দেন প্রধানমন্ত্রী

Pinterest LinkedIn Tumblr +

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে গণভবনে প্রতিদিন দুপুরে দেওয়া হয় বানরদের জন্য খাবার। আর পাখিদের জন্য বিভিন্ন জায়গায় মাটির পাত্রে রাখা হয় পানি। এছাড়া গরু, ছাগল, হাঁস, মুরগি, কবুতরের জন্যও সরবরাহ করা হয় খাবার।

অবাক করা এই তথ্য জানালেন তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। আজ সোমবার (২৬ এপ্রিল) নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেইজে গণভবনের সামনে বানরের খাবার খাওয়ার একটি ভিডিও শেয়ার করেন তিনি।

পশু-পাখিরও খাবার দেন প্রধানমন্ত্রী

গণভবনের সামনে বানরের খাবার খাওয়ার একটি ভিডিও শেয়ার করেন প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। ছবি: ফেসবুক

প্রতিমন্ত্রী তার ফেসবুক পেইজে লিখেছেন, ‘মানুষের সহায়তার পাশাপাশি দেশের এই সময়ে পশুপাখির জন্যও খাবার দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাঁর নির্দেশনায় রমজান ও ঈদ উপলক্ষে কর্মহীন মানুষদের খাবার ও টাকা পাঠানো হচ্ছে প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে। আওয়ামী লীগসহ সকল সহযোগী সংগঠন এরইমধ্যে খাবার বিতরণ শুরু করে দিয়েছে।’

পলক আরও লিখেছেন, ‘২০২০ সালের ৮ মার্চ প্রথম করোনা রোগী বাংলাদেশের মাটিতে শনাক্ত হওয়ার পর থেকে গত ১৩ মাস অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শহর থেকে গ্রাম বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের তিনি খোঁজ-খবর রাখছেন, যেন একজন মানুষও অভুক্ত না থাকেন। কর্মহীন মানুষ যেন কষ্ট না পায় তার জন্যও নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।’

প্রতিমন্ত্রী পলক এ সময় সকলকে অনুরোধ করে লিখেছেন, সবাই যার যতটুকু সামর্থ্য আছে, তা দিয়ে যেন আত্মীয়, বন্ধু, প্রতিবেশী সকলের পাশে দাঁড়ায় এবং মহামারী মোকাবেলায় সকলে যেন আত্মনিয়োগ করে।

লকডাউনের মধ্যে যারা আর্থিকভাবে মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন, সেসব গরীব, খেটে খাওয়া মানুষের সাহায্যের জন্য গত ২১ এপ্রিল ১০ কোটি ৫০ লাখ টাকা বরাদ্দ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। যা জেলা প্রশাসকদের মাধ্যমে অসহায় মানুষের হাতে পৌঁছাবে। পাশাপাশি, ৩৩৩ নাম্বারে কল দিলে পাওয়া যাবে খাদ্য সামগ্রী। সেখানেও সরকারের বরাদ্দ রয়েছে প্রায় ৫শ’ ৭৪ কোটি টাকা।

Share.

Leave A Reply