fbpx

সপ্তাহ ব্যবধানে কমেছে মুরগির দাম

Pinterest LinkedIn Tumblr +

সপ্তাহ ব্যবধানে রাজধানীর কাঁচাবাজারে কিছু জিনিসের দাম কমলেও এখনও বেশিরভাগ সবজি চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে। ৫০ টাকার নিচে কোনো সবজি বাজারে মিলছেই না। ফলে সবজির এই বাড়তি দাম ভোগাচ্ছে সাধারণ ক্রেতাদের। তবে আগের চেয়ে কমেছে মুরগির দাম।

শুক্রবার (২৩ এপ্রিল) রাজধানীর বিভিন্ন বাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

বাজারে এখন মান ও বাজার ভেদে প্রতি কেজি বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৬০ টাকা। গেল সপ্তাহে যার দাম ছিল ৮০ থেকে ১২০ টাকা।

এছাড়া শসার দামও সপ্তাহের ব্যবধানে কমেছে। শসা এখন কেজিপ্রতি ৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। গত সপ্তাহে যার দাম ছিল ৮০ টাকা।

অন্যদিকে সজনে, পটল, বরবটি, শিম, ঢ়েঁড়সের দামও কমেছে। সজনে ৬০ থেকে ৭০ টাকা, পটল ৪০ থেকে ৫০ টাকা, বরবটি দাম কমে ৫০ থেকে ৬০ টাকা এবং ঢ়েঁড়স এঁর কেজি বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৬০ টাকায়।

তবে সপ্তাহের ব্যবধানে লাউ, ধুন্দল, করলা ও ঝিঙের দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। লাউয়ের পিস বিক্রি হচ্ছে ৬০ থেকে ৭০ টাকা। আর ধুন্দল, করলা ও ঝিঙের কেজি বিক্রি হচ্ছে ৬০ থেকে ৮০ টাকায়।

এছাড়া টমেটোর দাম সপ্তাহের ব্যবধানে কিছুটা কমেছে। বাজারে এখন টমেটোর কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৫-৩০ টাকায়। গেল সপ্তাহে যার দাম ছিল ৪০ থেকে ৫০ টাকা।

এদিকে কাঁকরোলের কেজি ৮০ থেকে ৯০ টাকা এবং কচুর লতির কেজি বিক্রি হচ্ছে ৭০ থেকে ৮০ টাকায়। এছাড়া কাঁচকলার হালি বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকায়।

বাজারে নাগালে এসেছে শাকের দামও। লাল শাক, সবুজ শাক, পাট শাক, কলমি শাক ও পালং শাক আঁটিতে ১০ থেকে ১৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আর পুঁই শাকের আঁটি বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকায়।

এদিকে বাজারে ব্রয়লার ও পাকিস্তানি জাতের মুরগির দাম কিছুটা কমেছে। কেজি প্রতি ১০ টাকা কমে বয়লার মুরগি বিক্রি হচ্ছে ১৪০ থেকে ১৪৫ টাকায়। সোনালী মুরগির কেজি ২০ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে ২৩০ থেকে ২৭০ টাকায়। আর লাল লেয়ার মুরগির কেজি ২০০ থেকে ২২০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

Share.

Leave A Reply