fbpx

‘সবাই বলে টিকা দেবে, কবে দেবে সেটা বলে না’

Pinterest LinkedIn Tumblr +

আমরা অনেক দেশের কাছে টিকা চেয়েছি। সবাই বলে টিকা দেবে, কিন্তু কবে দেবে সেটা বলে না, বললেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

১০ জুন (বৃহস্পতিবার) রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ফিলিস্তিনকে ওষুধ সামগ্রী উপহার হস্তান্তর উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ কথা জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

এসময় মন্ত্রী আরও জানান, করোনা প্রতিরোধের জন্য আমরা এ পযর্ন্ত অনেক দেশেই টিকা চেয়েছি। তার মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে অ্যাস্ট্রেজেনেকার টিকা চাওয়া হয়েছে। এ মূহুর্তে বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রের রাডার স্কেলে নেই। কারণ যেসব দেশে করোনায় বেশি মানুষ মারা গেছে,শুধু মাত্র তাদেরকেই যুক্তরাষ্ট্র টিকায় অগ্রাধিকার দিচ্ছে। তবে আমাদের দেশে মারা গেছে মাত্র ১২ হাজার। তাই তাদের চোখে এটা খুবই কম।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের প্রবাসী বাংলাদেশিরাও টিকার জন্য চেষ্টা করছেন। সেখানে টিকার জন্য হোয়াইট হাউজে চিঠি দিয়েছেন ১৬৫৪ জন বাংলাদেশি।

তবে বাংলাদেশে করোনা টিকার যৌথ উৎপাদনের বিষয়ে আলোচনা চলছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, যেসব কোম্পানির সক্ষমতা আছে, এ বিষয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা করা হবে। উৎপাদনে সফল হলে পরবর্তীতে আমরা নিজেরাই টিকা রপ্তানি করতে পারবো।

এসময় মন্ত্রী আরও জানান, আগামী ১৩ জুন চীন থেকে উপহারের আরও ৬ লাখ টিকা দেশে আসবে। এছাড়া আরও দেড় কোটি টিকা চীন থেকে কেনার প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান মন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকায় নিযুক্ত ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত ইউসুফ এস ওয়াই রামাদান, বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ফার্মাসিউটিক্যালস ইন্ডাস্ট্রির সাধারণ সম্পাদক এস এম শফিউজ্জামান।

Share.

Leave A Reply