fbpx
BBS_AD_BBSBAN
২২শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | ৯ই ফাল্গুন ১৪৩০ | পরীক্ষামূলক প্রকাশনা

হামাস ছাড়ল ৮ জিম্মিকে, মুক্তি পেল ৩০ ফিলিস্তিনি

Pinterest LinkedIn Tumblr +
Advertisement

বৃহস্পতিবার আরও কিছু জিম্মি বিনিময় করেছে হামাস ও ইসরায়েলি বাহিনী। হামাসের সঙ্গে যুদ্ধবিরতির সপ্তম দিন গাজা থেকে আরও ৮ জন ইসরায়েলি জিম্মিকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। এর বিনিময়ে ইসরায়েল ৩০ ফিলিস্তিনিকে কারাগার থেকে মুক্তি দিয়েছে বলে জানিয়েছে জেরুজালেম।

জিম্মি দশা থেকে মুক্ত ইসরায়েলি নাগরিকদের নাম প্রকাশ করা হয়েছে। তবে ইসরায়েলের কারাগার থেকে মুক্তি পাওয়া ফিলিস্তিনিদের নাম এখনও প্রকাশ করা হয়নি। হামাস সংশ্লিষ্ট সংবাদমাধ্যম থেকেও বন্দীদের মুক্তির বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো তথ্য নিশ্চিত করা হয়নি।

গত এক ঘণ্টায় হামাস ৬ জিম্মিকে মুক্তি দিয়েছে। তারা ইসরায়েলে ফিরে গিয়েছে। বিকেলের আগে আরও দুজনকে মুক্তি দেওয়া হয়েছিল। কাতারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুর কার্যালয় নতুন করে মুক্তি পাওয়া জিম্মিদের স্বাগত জানিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে। এতে বলা হয়েছে, ইসরায়েল সরকার ৬ জন নাগরিককে স্বাগত জানিয়েছে যারা সবেমাত্র ইসরায়েলি ভূখণ্ডে ফিরে এসেছে। তারা দেশে ফিরেছেন বলে দায়িত্বশীল কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে তাদের পরিবারকে জানানো হয়েছে। ইসরায়েল সরকার জিম্মি এবং নিখোঁজদের সবাইকে ফিরিয়ে দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

গত ৭ অক্টোবর ভোরে ইসরায়েলে অতর্কিত হামলা চালায় হামাস। হামাসের এই হামলার জবাবে ওই দিনই গাজায় অভিযান শুরু করে ইসরায়েলি বিমান বাহিনী। ১৬ অক্টোবর থেকে সেই অভিযানে যোগ দেয় স্থল বাহিনীও। ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযানে গত দেড় মাসে উপত্যকায় নিহতের সংখ্যা পৌঁছেছে ১৪ হাজার ৮০০ জনে। এই নিহতদের মধ্যে নারী ও শিশুদের সংখ্যা ১০ হাজারেরও বেশি।

নিরাপত্তা পরিষদের অধিবেশন প্রস্তাব বাতিল হলেও গাজায় যুদ্ধবিরতি কিংবা মানবিক বিরতির পক্ষে শক্ত অবস্থান নেয় যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং জাতিসংঘ। সেই সঙ্গে এই যুদ্ধের শুরু থেকেই হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে মধ্যস্থতার ভূমিকা পালন করে আসছিল কাতার ও মিসর।

Advertisement
Share.

Leave A Reply