fbpx
BBS_AD_BBSBAN
৭ই ডিসেম্বর ২০২২ | ২২শে অগ্রহায়ণ ১৪২৯ | পরীক্ষামূলক প্রকাশনা

৭ ফেব্রুয়ারি থেকে চট্টগ্রাম-পটিয়া-দোহাজারী রুটে চলবে দুই জোড়া ট্রেন

Pinterest LinkedIn Tumblr +
Advertisement

৭ ফেব্রুয়ারি রবিবার থেকে চট্টগ্রাম- দোহাজারী ও চট্টগ্রাম-পটিয়া রুটে চলবে নতুন দুই জোড়া ট্রেন।

৬ ফেব্রুয়ারি শনিবার চট্টগ্রামের দোহাজারী রেল স্টেশন চত্বরে দুই জোড়া ডেমো ট্রেন উদ্বোধন করেন রেলপথ মন্ত্রী নুরুল ইসলাম ।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী বলেন, ‘রেল চলাচল আরামদায়ক ও নিরাপদ করতে রেললাইন সংস্কার ও রেলের উন্নয়নে মেগা প্রকল্প গ্রহণ করা হচ্ছে। ২০২২ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে দোহাজারী থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত রেললাইনের কাজ শেষ করে ট্রেন চলাচলের উপযোগী করা হবে। প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে পরীক্ষামূলকভাবে এখানে ডেমো ট্রেন দেয়া হয়েছে। চট্টগ্রাম-কক্সবাজারের রেল যোগাযোগ উন্নত করার লক্ষ্যে দোহাজারীতে একটি অত্যাধুনিক জংশন গড়ে তোলা হবে।’

রেলপথ মন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেয়া দশটি মেগা প্রকল্পের মধ্যে দু’টি হলো রেলওয়ের। এর মধ্যে একটি পদ্মা সেতুর উপর ট্রেনের যাত্রা। অন্য প্রকল্পটি মিয়ানমার, চীন ও ভারতের সাথে সরাসরি রেল যোগাযোগ। রেলওয়ের এই দুই মেগা প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে বদলে যাবে রেল যোগাযোগ ব্যবস্থার চিত্র। পাশাপাশি বাড়বে কর্মসংস্থানও।

নতুন দুই জোড়া ট্রেনের সময়সূচি

১. ‘দোহাজারী কমিউটার-১’ (চট্টগ্রাম টু পটিয়া)
চট্টগ্রাম থেকে ছাড়ার সময়- ভোর ৫টা ৩০ মিনিট
পটিয়া পৌঁছার সময়- ভোর ৬টা ৪০ মিনিট।
মাঝখানে বিরতি স্টেশন- ষোলশহর ও জানালীহাট।

২. ‘দোহাজারী কমিউটার-২’ (পটিয়া টু চট্টগ্রাম)
পটিয়া থেকে ছাড়ার সময়- সকাল ৭ টা ৩০ মিনিট
চট্টগ্রাম পৌঁছার সময়- সকাল ৯টা ০৫ মিনিটে।
বিরতি স্টেশন হলো খানমোহনা, ধলঘাট, বেঙ্গুরা, গোমদন্ডী, জানালীহাট, ষোলশহর, চট্টগ্রাম পলিটেকনিক এবং ঝাউতলা।

৩. ‘দোহাজারী কমিউটার-৩’ (চট্টগ্রাম টু দোহাজারী)।
চট্টগ্রাম থেকে ছাড়ার সময়- সন্ধ্যা ৫টায়
দোহাজারী পৌঁছার সময়- সন্ধ্যা ৭টা ৩০ মিনিট।
ট্রেনটির বিরতি স্টেশন যাত্রাপথের সবক’টি স্টেশনে।

৪. ‘দোহাজারী কমিউটার-৪’ (দোহাজারী টু চট্টগ্রাম)।
দোহাজারী থেকে ছাড়ার সময়- সন্ধ্যা ৭টা ৪০ মিনিট
চট্টগ্রাম পৌঁছানোর সময়- রাত ১০টা ৪০ মিনিট।

Advertisement
Share.

Leave A Reply