fbpx

কাপড়ের মাস্ক ব্যবহারে কী কী সতর্কতা জরুরি, জানালো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

Pinterest LinkedIn Tumblr +

বিশ্বে হু হু করে বাড়ছে করোনা রোগীর সংখ্যা। করোনা সঙ্কটের এই সময়ে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যে পরিণত হয়েছে মাস্ক। গোটা বিশ্বে যে হারে সংক্রমণ এবং মৃত্যু বেড়ে চলেছে, তাতে আগামী কয়েক বছর তো বটেই, সারা জীবনের জন্য মাস্ক হয়তো অপরিহার্য হয়ে গেল, বিশেষজ্ঞদের একাংশ এমনটাই মনে করছেন।

সংক্রমণ  থেকে রক্ষা পেতে কাপড়ের মাস্ক নাকি সার্জিক্যাল মাস্ক, কোনটা বেশি ভাল, তা নিয়ে এখনও সাধারণ মানুষের মধ্যে দোলাচল রয়েছে। শ্বাসকষ্টের সমস্যা থাকায় বহু মানুষ আবার কাপড়ের মাস্কই বেছে নিচ্ছেন। সে কথা মাথায় রেখে কাপড়ের মাস্ক পরার ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু সতর্কতা মেনে চলার পরামর্শ দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা(ডব্লিওএইচও)।

করোনা সঙ্কটের শুরু থেকেই মাস্ক এবং স্যানিটাইজারের উপর জোর দিয়ে আসছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। কাপড়ের মাস্ক ব্যবহারের ক্ষেত্রেও হাত পরিষ্কার রাখায় বিশেষ গুরুত্ব দিয়েছে তারা। বলা হয়েছে, মাস্ক পরা হোক বা খোলা, যে কোনও সময় মাস্ক ছোঁয়ার আগে হাত ভাল করে ধুয়ে নিতে হবে। মাস্ক পরার পর মুখ, নাক এবং থুতনি সম্পূর্ণ ভাবে ঢাকা থাকতে হবে।

অনেকে আছেন যারা একটু পর পর মাস্ক ঠিক করেন। কিন্তু হু বলছে, ঘন ঘন মাস্ক না ছোঁয়াই ভাল। আর যদিও বা মাস্ক খুলতে হয় বা ঠিক করতে হয়, তা কানের পাশে অথবা মাথার পিছন দিক থে‌কে মাস্কের বন্ধনী ধরেই খুলতে বা পরতে হবে। খোলার পর মুখের কাছ থেকে সরিয়ে নিয়ে যেতে হবে মাস্ক।

সার্জিক্যাল মাস্কের ক্ষেত্রে এক বার পরার পরই তা ফেলে দিতে হয়। তবে কাপড়ের মাস্ক পুনর্ব্যবহারযোগ্য বলে জানিয়েছে হু। তবে পুনরায় ব্যবহার করতে চাইলে সাবান বা ডিটারজেন্টে ভিজিয়ে ধুয়ে নিতে হবে। গরম জলে সাবান মিশিয়ে দিনে একবার মাস্ক ধুয়ে নিলে ভাল হয়।

Share.

Leave A Reply